SSC 2021 Finance and Banking Assignment Answer Solution

SSC 2021 Finance and Banking Assignment Answer 2021: For business studies the group of students most important topics is Finance and Banking at total marks of 50. SSC 2021 Finance and banking has already published a new assignment for this week.

Now, students slowly read the assignment and solutions have been taken for the textbook. Students need the assignment of downloading a visit to their official website. All week assignments have been submitted to the dshe.gov.bd portal website.

Now, get ready for the assignment solution. For this you can print out this assignment. Carefully reading this assignment & we are trying its solution. For you the best way is to follow the textbook & otherwise follow to our website- jobnewsbd24.com.

SSC 2021 Finance and Banking Assignment

In order to the education minister every week a new assignment has been published by the Department of Secondary and Higher Education (DSHE). These assignment tasks are sent to dshe.gov.bd web portal website.

According to the latest news, the government assignment process has begun. For the present situation, the education minister chose an alternative option for the ssc students. In the case of the web portal website every week a new assignment notice has been published in different classes. 

According to this week for the business studies group of studying students, assignment Finance and Banking. In Bangladesh all institutions of government and private students should join this assignment process.

SSC 2021 Finance and Banking Assignment

SSC 2021 Finance and Banking Assignment Answer 2021

Business Studies group of students most of common subject is finance and banking. Already dshe.gov.bd web portal website this assingment notice has been published. Candidates this assignment correct answer provided and this assignment sent to the college teacher. This assignment solution for the text book in addition our website through to know it. Follow to below instruction:-

অর্থের সময় মূল্যর ধারণাঃ

অর্থের সময় বলতে অর্থের প্রতি এককের মূল্য সময় পরিবর্তনরে সাথে সাথে যে পরিবর্তন হয় তাকে বুঝায়। যেমন আজকের ১০০০ টাকা এবং আজ থেকে ১ বছর পরের ১০০০ টাকার মূল্য সমান নয়। অর্থাৎ আমলে ১০০০ টাকা অধিকতর মূল্যবান। এটাই অর্থের সময়মূল্য ধারণা। অর্থায়নের দৃষ্টিতে সময়ের পরিবর্তনের সায়ে সাত ভবিষ্যতে প্রাপ্ত অর্থের মূল্যের পরিবর্তন ঘটে। সময়ের পরিবর্তনের সাথে অর্থের মূল্যের এই পরিবর্তনকেই অর্ষের সময়মূল্য বলে। যেমন, তুমি তােমার বন্ধু হাসানের নিকট ১০০০ টাকা পাও, এমতাবস্থায় হাসান বলল ১০০০ টাকা এন পরিশােধ

করে ১ বছর পর পরিশােধ করবে। অর্থের সময়মূল্য ধারণা অনুসারে আজকরে ১০০০ টাকা আর এক বছর পরে ১০০০ টাকা সমান মূল্য বহন করে না। ধর, সুদের হার শতকরা ১২ ভাগ অর্থাৎ তুমি যদি জনতা ব্যাংকে আজকে ১০০০ টাকা জমা রাখ, তবে আগামী বছর ব্যাংক তােমাকে ১১০০ টাকা দেবে। সুতরাং আজকের ১০০০ টাকা এবং আগামী বছরের ১১০০ টাকার সমান মূল্য বহন করে। উপযুক্ত আলােচনার পরিপ্রেক্ষিতে বলা যায়

  • ক. বর্তমানে প্রাপ্ত অর্থ ভবিষ্যতে প্রাপ্ত অর্থের চেয়ে বেশি মূল্যবান
  • খ, বর্তমানে প্রাপ্ত অর্থ নির্দিষ্ট সুদের হারে বিনিয়ােগ করা যায়
  • গ, বর্তমানে প্রাপ্ত অর্থ ও ভবিষ্যতে প্রাপ্ত অর্থের পার্থক্যের কারণ হলাে সুদের হার। সুতরাং অর্থের সময়মূল্য বলতে সময়ের পরিবর্তনের সাথে সাথে অর্থের মূল্যের যে হ্রাস বা বৃদ্ধি পায় তাকে বুঝায়।

অর্থের ভবিষ্যৎ মূল্য ও চক্রবৃদ্ধি প্রক্রিয়া:

ভবিষ্যৎ মূল্য বলতে বর্তমানে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ কোন ব্যাংক অথবা অন্য কোন সম্পদে নির্দিষ্ট হয়ে | বিনিয়ােগ করলে ভবিষ্যৎ একটি নির্দিষ্ট সময় পরে যে নগদ অর্থ পাওয়া যায় তাকে বুঝায়। ভবিষ্যমূল্য নির্ধারণ আর প্রক্রিয়াকে চক্রবৃদ্ধিকরণ প্রক্রিয়া বলা হয়। যেমন: জনাব সালাম আজকে সােনালী ব্যাংকের সঞ্চয়ী হিসাবে শতকরা ৮% সুদে ১,০০০ টাকা জমা রেখেছে। ৫ বছর শেষে সে কত টাকা ফেরত পাবে? জনাব হাসান আজ থেকে ৭ বছর ৪ ৬০,০০০ টাকা দিয়ে একটি ল্যাপটপ ক্রয় করতে চান। সুদের হার ১০% হলে তাকে বর্তমানে কত টাকা ব্যাংকে জমা রাখতে হবে? ইত্যাদি অর্থের ভবিষ্যৎ মূল্যের উদাহরণ।

জনাব রুস্তম আজকে ১০০ টাকা সােনালী ব্যাংকে শতকরা ১০ সুদে জমা রেখেছে ।১ বছর পর ব্যাংক তাকে দেবে | ১১০ টাকা। অর্থাৎ সুদের হার শতকরা ১০ ভাগ হলে আজকের ১০০ টাকা, এক বছর পরের ১১০ টাকা এবং ২ বছর পরের ১২১ টাকা সমান মূল্য বহন করে। এই ১০০ টাকাকে বর্তমান বলে বলে এবং ১১০ ও ১২১ টাকাকে ভবিষ্যৎ মূল্য বলে। বর্তমান মূল্য জানা থাকলে নিম্নের সূত্রের সাহায্যে ভবিষ্যৎ মূল্য নির্ণয় করা যায়: [ সূত্র ২ : ভবিষ্যত মূল্য (FV) = PV (1+i)0

  • এখানে, FV= ভবিষ্যত মূল্য
  • PV = বর্তমান মূল্য 
  • i= সুদের হার 
  • n= সময় বা মেয়াদকাল

SSC 2021 Finance and Banking Assignment Answer Solution 1

সুতরাং ভবিষ্যৎ মূল্য নির্ধারণের জন্য উপযুক্ত উদাহরণে যে প্রক্রিয়াটি ব্যবহৃত হয়েছে, তাকে চক্রবৃদ্ধিকরণ পদ্ধতি বলে। এখানে, এক বছর পরে ৫,৫০০ টাকা ভবিষ্যৎ মূল্যের মধ্যে আসল ৫,০০০ টাকা ও সুদ ১০% হারে সুদের পরিমাণ ৫০০ টাকা। একই ভাবে দ্বিতীয় বছর পরে সুদের পরিমাণ আরও ৫০০ টাকা হলে দ্বিতীয় পরে ভবিষ্যৎ মূল্য হওয়া উচিত ৬,০০০ টাকা কিন্তু দ্বিতীয় বছর পরে ভবিষ্যৎ মূল্য হয়েছে ৬,০৫০ টাকা। এর কারণ দ্বিতীয় বছরের শুরুতে আসল ধরা হয় ৫,৫০০ টাকা এবং তাতে করে দ্বিতীয় বছরে ১০% হারে সুদ হয় ৫৫০ টাকা। এভাবে প্রথম বছরের সুদাসলকে দ্বিতীয় বছরের আসল ধরে তার উপর দ্বিতীয় বছরের সুদ ধার্য করার প্রক্রিয়াকে চক্রবৃদ্ধিকরণ পদ্ধতি বলে। চক্রবৃদ্ধিকরণ পদ্ধতিতে প্রতিবছর সুদাসলের উপর সুদ ধার্য করে ভবিষ্যৎ মূল্য নির্ণয় করা হয়। অর্থাৎ সুদ আসলের উপর যে সুদ প্রদান করা হয় তাকে চক্রবৃদ্ধি সুদ বলে 

SSC 2021 Finance and Banking Assignment Answer Solution 2

SSC 2021 Finance and Banking Assignment Answer Solution 3

 

 

Leave a Comment